কিভাবে ইনফো এ লিখুন লেখক হয়ে যান

লেখালেখি করে আপনি জিততে পারেন আকর্ষনীয় পুরষ্কার! বিস্তারিত দেখুন

প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করা

প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করবেন? প্লাস্টিকের চাল বেশ কিছুদিন হলো নানান দিকে আলাপ হচ্ছে। অনেকেই আতংকিত। ফেসবুক ছাড়াও নানান ইউটিউব ভিডিওতে এ নিয়ে দারুন সব আলাপ আলোচনা সমালোচনা অনেকেই শুনেছেন। আসুন দেখা যাক কিভাবে প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করা যায়?

প্রথমেই দেখি প্লাস্টিক আসলেই কী?

প্লাস্টিক একটি পদার্থ যা সিনথেটিক কিংবা প্রাকৃতিক দুইভাবেই সংগ্রহ করা হয়। ক্রুডওয়েল রিফাইন করে মনোমার(সিংগেল মলিকুল) কে পলিমারাইজ(১০০০ মনোমার একত্রিত করে) করে পলিমার পাওয়া যায়। প্লাস্টিক এবং পলিমার একই জিনিস। ল্যাটেক্স, রাবার কিংবা সেলুলোজ থেকেও প্লাস্টিক তৈরী হয়।

প্লাস্টিকের আকার আকৃতি, বর্ন, ধরন এসব নানাভাবেই পরিবর্তন করা যায়। তারপরেও প্লাস্টিক এবং ন্যাচারাল অন্যান্য বস্তুর এর মধ্যে অনেক অমিল রয়েছে।

প্লাস্টিক চাল সনাক্ত করুন-

দহন: পোড়ালে যেকোন প্লাস্টিক পুড়ে ছাই হয় না, গুটি টাইপ হয়। আবার অনেক সময় তা গলে কিছুটা তরল হয়ে অন্য কোন বস্তুর সাথে লেগে থাকে। তাই পুড়িয়ে কোন বস্তু প্লাস্টিক কি না তা বুঝতে পারা যায়।

চাল পোড়ালে তা প্রথমে একটি নির্দিষ্ট তাপে ফুটতে শুরু করে এবং এক পর্যায়ে তা পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পোড়া চালের গন্ধ সম্পূর্ন আলাদা।

চাল কোন একটা মেটালিক/ধাতব প্লেটের উপর রেখে কিংবা কোন পাতিলে রেখে তা চুলায় রেখে তাপ দিলে ফুটে অনেকটা মুড়ির মতো হয়। প্লাস্টিকের চাল এরকম হবার সম্ভাবনা নেই। নিচের চিত্রে দেখুন-

পঁচনঃ চাল থেকে রান্না করা ভাত এক সময় পঁচে যায়, প্লাস্টিক কখনোই পঁচে না। এই পদ্ধতিতে রান্না করা ভাত পানি ছাড়া কোথাও রেখে দিন।  তারপর এক বা দুই দিন পর পর্যবেক্ষণ করুন। দেখবেন ন্যাচারাল চাল হলে তা পঁচে দূর্গন্ধ বের হচ্ছে। আর প্লাস্টিক হলে সেরকম পরিস্থিতি হয় না। এভাবেও প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করা যেতে পারে।

ভার পর্যবেক্ষণঃ একটি পাত্রে কিছু পানি নিয়ে তাতে কিছু পরিমান চাল ঢেলে দিন। দেখবেন চালের বেলায় সব চাল পানিতে ঢুবে যাবে। কিন্তু প্লাস্টিক হলে তার অনেকগুলোই পানিতে ভাসবে। কারন উচ্চ চাপে পলিমারের সৃষ্টি হওয়ায় অনেক সময় প্লাস্টিক চালের মত ভারী হয় না। এতে বাতাসের মিশ্রন থেকে যেতে পারে।এভাবেও প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করা যেতে পারে।

রাসায়নিকভাবে পরীক্ষাগারে প্লাস্টিকের চাল সনাক্ত করা যেতে পারে। এ ক্ষেত্রে কিছু চাল সংগ্রহ করে স্থানীয় কোন একটি দক্ষ মাননিয়ন্ত্রিত পরীক্ষাগারে(Acredited Lab)  প্রমান করা যেতে পারে।

আশা করি এখন থেকে আপনাদের প্লাস্টিক এর চাল নিয়ে আর চিন্তা করতে হবে না।




মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

ভেরিফাই করুন--- *